ডাক্তারের বিরুদ্ধে ৪৮ রোগীকে যৌন হেনস্তার অভিযোগ

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ

৩৫ বছর ধরে ৪৮ জন রোগীকে যৌন হেনস্তার অভিযোগ উঠেছে ভারতীয় বংশোদ্ভূত এক চিকিৎসকের বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত ওই চিকিৎসকের নাম হলো কৃষ্ণ সিং। বৃহস্পতিবার (১৪ এপ্রিল) স্কটল্যান্ডের উচ্চ আদালতে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়। যদিও এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন তিনি।

২০১৮ সালে এক নারী ওই চিকিৎসকের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগ তোলেন। এরপরই বিষয়টি খতিয়ে দেখতে তদন্তে নামে পুলিশ। তাদের দাবি, চিকিৎসকের বিরুদ্ধে ৫৪টি অভিযোগ জমা পড়েছে। তার মধ্যে বেশির ভাগই যৌন হেনস্তা এবং অশালীন আচরণের।

বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাঞ্জেলা গ্রে আদালতকে জানিয়েছেন, নারীদের যৌন হেনস্তা করা একটি নিয়মিত অভ্যাসে পরিণত হয়েছিল ওই চিকিৎসকের। কখনো প্রত্যক্ষ বা কখনো পরোক্ষভাবে নারী রোগীদের যৌন হেনস্তা করতেন তিনি।

কৃষ্ণ সিং পাল্টা অভিযোগ করেন এবং বলেন যে অভিযোগকারী রোগীরা ভুল বলছেন। তিনি আরও দাবি করে বলেন, তার যে সব পরীক্ষা পদ্ধতি নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে, তা তিনি ভারতে পড়ার সময় শিখেছিলেন।

স্কটল্যান্ডের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ১৯৮৩ সালের ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু করে ২০১৮ সালের মে মাস পর্যন্ত তার বিরুদ্ধে মোট ৪৮ জন রোগী অনুপযুক্ত আচরণ এবং যৌন হেনস্তার অভিযোগ তোলেন। নর্থ ল্যাঙ্কাশায়ারে যখন কৃষ্ণ চিকিৎসা করাতেন সেই সময়কার বহু রোগী তার বিরুদ্ধে এসব অভিযোগ এনেছেন।

কৃষ্ণ সিংকে স্থানীয় লোকজন ভাল বলেই চেনেন। মেম্বার অব দ্য ব্রিটিশ এম্পায়ার (এমবিই) সম্মানও পেয়েছেন তিনি।

আদালতের বিচারক লর্ড আর্মস্ট্রং আগামী মাস পর্যন্ত তার সাজা স্থগিত করেছেন এবং পাসপোর্ট জমা রাখার শর্তে তাকে জামিনে মুক্তি দেওয়ার অনুমতি দিয়েছেন।

সূত্র: এনডিটিভি, বিবিসি

এ বিভাগের অন্যান্য