এমসি ছাত্রাবাসে গণধর্ষণ: নির্যাতিতার স্বামীকে প্রাণনাশের হুমকি

সিলেটের সময় ডেস্ক ঃ

সিলেটের এমসি কলেজের ছাত্রাবাস প্রাঙ্গণে নির্যাতিত ওই গৃহবধূর স্বামীকে প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হয়েছে।
সোমবার (৪ এপ্রিল) সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের (এসএমপি) দক্ষিণ সুরমা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন ওই গৃহবধূর স্বামী। দক্ষিণ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামরুল আহসান বিষয়টি জানিয়েছেন।

জিডিতে উল্লেখ করা হয়েছে, গত ২৯ মার্চ সকাল ৯টার দিকে একজন অজ্ঞাত ব্যক্তি সিএনজিচালিত অটোরিকশাযোগে ওই গৃহবধূর স্বামীর বাড়িতে গিয়ে তার খোঁজ করে। তিনি বাড়িতে না থাকায় তার বাবা ও ছোট ভাইয়ের সঙ্গে খারাপ আচরণ ও হুমকি দিয়ে চলে আসে। অজ্ঞাত ওই ব্যক্তি তার মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করে তার ব্যবহৃত মোবাইল নম্বরে কল দিয়ে নাম-ঠিকানা-পরিচয় গোপন রেখে তাকে বিভিন্ন ধরনের কথাবার্তা ও হুমকি-ধমকি প্রদান করে।

আরও বলা হয়েছে, গত দুদিন থেকে কয়েকবার কল দিয়ে তাকে ও তার পরিবারের অন্য সদস্যদের ও তার মামলা পরিচালনাকারী বাংলাদেশ মানবাধিকার বাস্তবায়ন সংস্থা সিলেট-এর নেতৃবৃন্দ ও সংশ্লিষ্ট আইনজীবীদের ক্ষতিসাধন ও মিথ্যা মামলা এবং জানে মারার হুমকি প্রদান করে। এ অবস্থায় তিনি ও তার পরিবার চরম নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছেন।

২০২০ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর রাতে এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে গণধর্ষণের শিকার হন স্বামীর সঙ্গে ঘুরতে যাওয়া এক গৃহবধূ। এরপর পুলিশ ধর্ষণের শিকার ওই নারীকে উদ্ধার করে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। সেখানে ওসিসিতে তিন দিন চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরে যান তিনি।ওই রাতেই ধর্ষণের শিকার গৃহবধূর স্বামী বাদী হয়ে মহানগরের শাহপরান থানায় ছয় ছাত্রলীগ কর্মীর বিরুদ্ধে মামলা করেন।

দেশে-বিদেশে আলোচিত এ গণধর্ষণের ঘটনার ২ মাস ২৮ দিন পর আদালতে ৮ জনকে আসামি করে চার্জশিট প্রধান করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা।

এ বিভাগের অন্যান্য