সিলেট হুমায়ুন চত্বর থেকে ২ মানবপাচারকারী ও ১৪ রোহিঙ্গা আটক

সিলেটে দুই মানবপাচারকারী ও ১৪ জন রোহিঙ্গাকে আটক করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন অ্যাকশন (র‌্যাব)-৯। রোববার (৬ ডিসেম্বর) ভোর সাড়ে ৬টায় সিলেটের দক্ষিণ সুরমা এলাকার হুমায়ুন রশীদ চত্বর থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটক রোহিঙ্গাদের মধ্যে ৩ নারী ও ৭ শিশু-কিশোর রয়েছেন।

আটককৃতরা হচ্ছেন- আবদুর রহমান (২৯), মো. সিরাজ (২০), সৈয়দ নুর (১৬), জুবায়ের আহমদ সৈয়দ (২০), জহুরা বেগম (৩০), মো. ইদ্রিস (১২), মো. জুনাইদ (১০), মো. ইউনুস (৮), মো. মুস্তফা (৪), নুর আয়েশা বেগম (৩৫), মফিজুর রহমান (১১), সৈয়দুর রহমান (৯), আজিজুর রহমান (৪) ও খুশনামা বেগম (১৮)।

আটক দুই মানবপাচারকারী হচ্ছেন- কক্সবাজার উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্প (৪)-এর হামিদের ছেলে মো. সাদেক (২২) ও সিলেটের কানাইঘাট উপজেলার ডোনা গ্রামের মৃত রিয়াজের ছেলে মো. সেলিম আহমেদ (২৩)।

আটকের সময় তাদের কাছ থেকে ইন্ডিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ৪টি আইডি কার্ড, ৭টি মোবাইল ও ৭টি সিম উদ্ধার করা হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন র‌্যাব-৯ এর এএসপি এ কে এম কামরুজ্জামান।

তিনি জানান, গোপন সূত্রের ভিত্তিতে পাওয়া খবরের ভিত্তিতে রোববার (৬ ডিসেম্বর) ভোর সাড়ে ৬টায় দক্ষিণ সুরমার হুমায়ুন রশীদ চত্বর থেকে দুই মানবপাচারকারী ও ১৪ জন রোহিঙ্গাকে আটক করেছে র‌্যাব-৯ এর একটি দল। এসময় তাদের কাছ থেকে ইন্ডিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ৪টি আইডি কার্ড জব্দ করা হয়।

এএসপি কামরুজ্জামান বলেন- প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা গেছে, রোহিঙ্গারা ইন্ডিয়া থেকে সিলেট সীমান্ত দিয়ে প্রবেশ করেছে। তাদের উদ্দেশ্য ছিলো কক্সবাজারস্থ উখিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যাওয়া এবং সেখান থেকে পরবর্তীতে ভুয়া কাগজপত্র তৈরি করে তাদের বিদেশে পাঠানোর ব্যবস্থা করবে মানবপাচারকারীরা।

আটক ১৪ জন রোহিঙ্গাকে আইনি প্রক্রিয়া শেষে উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্পে এবং মামলা দায়েরপূর্বক দুই মানবপাচারকারীকে দক্ষিণ সুরমা থানায় হস্তান্তর করা হবে বলে জানিয়েছেন এএসপি কামরুজ্জামান ।

এ বিভাগের অন্যান্য