বড়লেখায় স্কুলছাত্র জাকারিয়া হত্যা মামলার আসামীর আত্মসমর্পণ

সিলেটের সময় ডেস্ক ,

 

মৌলভীবাজারের বড়লেখায় চাঞ্চল্যকর স্কুলছাত্র জাকারিয়া আহমদ (১৭) হত্যা মামলার একমাত্র আসামী আজিম উদ্দিনকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। ৬ মাস আত্মগোপনে থাকার পর মঙ্গলবার বড়লেখা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির হয়ে জামিন চাইলে বিজ্ঞ সিনিয়র ম্যাজিস্ট্রেট হরিদাস কুমার তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

আজিম উদ্দিন উপজেলার আরেঙ্গাবাদ গ্রামের মছুর উদ্দিন তোতার ছেলে। নিহত জাকারিয়া আহমদ একই গ্রামের ছালাহ উদ্দিনের ছেলে ও দক্ষিণভাগ এনসিএম উচ্চ বিদ্যালয়ের এসএসসির ফলাফল প্রার্থী ছিলেন। রেজাল্ট বেরুনোর আগেই ঘাতক আজিম উদ্দিন নির্মমভাবে তাকে খুন করে পালিয়ে যায়।
জানা গেছে, স্কুলছাত্র জাকারিয়া আহমদের বাবার মুদি দোকান থেকে গত ২১ মে সকালে বাকিতে সিগারেট কিনেন মছুর উদ্দিন তোতা মিয়া। সন্ধ্যার পর সিগারেটের ৮৫ টাকা আনতে গেলে স্কুলছাত্র জাকারিয়া আহমদের বাবা ছালাহ উদ্দিনকে গালিগালাজ শুরু করে দেনাদার তোতা মিয়ার ছেলে প্রবাস ফেরৎ আজিম উদ্দিন। তর্কাতর্কির এক পর্যায়ে সে ছালাহ উদ্দিনকে মারধর শুরু করে। বাবাকে বাচাতে গেলে স্কুলছাত্র জাকারিয়া আহমদকে আজিম ছুরিকাঘাত করলে ঘটনাস্থলেই সে মারা যায়। এরপর ঘাতক আজিম আত্মগোপন করে। নির্মম এ খুনের ঘটনায় নিহতের বাবা ছালাহ উদ্দিন পরদিন প্রবাস ফেরত আজিম উদ্দিনের বিরুদ্ধে থানায় হত্যা মামলা করেন।

বড়লেখা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের এপিপি গোপাল দত্ত বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এ বিভাগের অন্যান্য