স্থায়ীভাবে বন্ধ হয়ে যেতে পারে ব্রিটেনের অনেক মসজিদ!

ব্রিটেনে মুসলমানদের সর্ববৃহৎ সংগঠন মুসলিম কাউন্সিল অব ব্রিটেন আশঙ্কা করছে যে যুক্তরাজ্যের কিছু মসজিদ করোনাভাইরাস লকডাউন শেষে স্থায়ীভাবে বন্ধ হয়ে যেতে পারে।

ব্রিটেনের মুসলিম কাউন্সিল আশংকা প্রকাশ করেছে যে করোনা ভাইরাস লকডাউন চলাকালীন সময়ে বন্ধ হয়ে যাওয়া মসজিদগুলি, যেগুলিতে মানুষ পরিদর্শন ও নামাজ পড়তে যেত এবং মানুষের দানের অর্থে পরিচালিত হয়ে আসছিল, এই মসজিদগুলো প্রচণ্ডভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে।

উল্লেখ্য আজ থেকে ব্রিটেনে পবিত্র রমজান মাসের সূচনা হয়েছে, যেখানে বিশ্বজুড়ে মুসলমানরা আগামী চার সপ্তাহ উপবাস, প্রার্থনা এবং তাদের সম্প্রদায়ের জীবনের কল্যাণ ও সুন্দর কামনায় ব্যয় করবে।

ব্রিটেনের মুসলিম কাউন্সিলের সেক্রেটারি জেনারেল হারুন খান স্কাই নিউজকে বলেছেন, “মসজিদগুলি খুব বেশি আঘাত প্রাপ্ত হবে। এইদেশের বেশিরভাগ মসজিদই দাতব্য সংস্থা হিসাবে পরিচালিত হয়। তারা দর্শনার্থী এবং মুসল্লিদের কাছ থেকে প্রাপ্ত সহায়তার উপর প্রচুর নির্ভর করে। কিন্তু করোনার কারণে সেটি আর হচ্ছে না।

তিনি আরও বলেন, মসজিদগুলোর বেতন ভুক্ত কর্মীদের সুরক্ষা দেয়া সম্ভব হচ্ছে না। যা সত্যিই খুব কঠিন। এবং রমজানের আগে এটি কোনভাবেই আর স্বাভাবিক হবে না। আর এ জন্যই এই জাতীয় মসজিদগুলো স্থায়ীভাবে বন্ধ হয়ে যাওয়ার আশংকা প্রকাশ করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, ব্রিটেনে দুই হাজার মসজিদ ও প্রায় ২.৬ মিলিয়ন মুসলিম জনগোষ্ঠীর বসবাস।

এ বিভাগের অন্যান্য