দিরাইয়ে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ আহত ৩০

নিউজ ডেস্ক: সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার ভাটিপাড়া ইউনিয়নের আলীনগর গ্রামে দুইপক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় উভয়পক্ষের নারীসহ ৩০ জন আহত হয়েছেন। গুরুতর আহত আশিক নুর (৫০) ও আজিজুর (৫২) নামের দুইজনকে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। সোমবার (৪ নভেম্বর) বেলা ২টায় বাড়ির রাস্তা নিয়ে গ্রামের আবুল খায়ের ও নুরুল আমিনের লোকজনের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

ঘণ্টাব্যাপী রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের ঘটনায় আহত আবুল কাশেম (৫২), নজরুল (৪০), সালেক (৬০), ছফিননুর (৩২), আমিন নেছা (৬৫), সাদেক (৪০), রাজীব (২৩), সমছুন নেছা (৬৫), আব্দুল খায়ের (৬৫), সাদ্দাম (৩২), মোসাহিদ (৪০), নুরুল আমিন (৬০), জুলেন (৪৫), হাবিজনুর (৩৮), তাইজ উদ্দিন (৫০), হীরক (১৮), হাসিদ নুর (৪০), হাসেদা বেগম (৬০), হাসেন (৩২), আজাদ (৫০) ও লাল ময়না ( ৪০) সহ ২১ জনকে দিরাই হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে এবং বাকিদের প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদান করা হয়েছে।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, আবুল খায়ের গংদের ঘর থেকে বের হওয়ার একমাত্র রাস্তা নুরুল আমিনের লোকজন বেড়া দিয়ে দেয়। রাস্তায় বেড়া দেওয়াকে কেন্দ্র করে গত কয়েকদিন ধরে উভয়পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। সোমবার গ্রাম্য শালিসকারীগণ আপসে মীমাংসা করার জন্য মিলিত হন। এক পর্যায়ে শালিসকারীদের পক্ষ থেকে কয়েকজন সরেজমিনে জায়গা দেখতে আসেন এবং রাস্তার বেড়া তুলে নেওয়ার অনুরোধ জানান। রাস্তার বেড়া তুলে নেওয়া হলে নুরুল আমিনের লোকজন আপত্তি জানান। এ নিয়ে উভয়পক্ষের লোকজনের মধ্যে কথা কাটাকাটি শুরু হলে শালিসে আসা লোকজন চলে যান। এরপর দুইপক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষের ঘটনায় উভয়পক্ষের নারীসহ ৩০/৪০ জন আহত হন। খবর পেয়ে দিরাই থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে।

এ বিভাগের অন্যান্য