সিলেটে ইয়াবাসহ মাদক ব্যবসায়ী ও জুয়াড়ি আটক

নিউজ ডেস্ক:  সিলেট মহানগর গোয়েন্দা পুলিশে (ডিবি)’র অভিযানে জুয়া খেলার সামগ্রীসহ চার জুয়াড়ি ও ইয়াবাসহ এক মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করা হয়েছে। মঙ্গলবার (১৫ অক্টোবর) সন্ধ্যায় মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের এসআই শাওন মাহমুদ অপু নেতৃতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কোতোয়ালী মডেল থানার ঘাসিটুলা এলাকায় একটি গাড়ির গ্যারেজের ভিতর অভিযান পরিচালনা করে তীর শিলং জুয়া খেলার সামগ্রী সহ চার জুয়াড়িকে আটক করা হয়।

আটককৃত আসামীরা হলো- সিলেট জেলার কোতোয়ালী থানার ঘাসিটুলা এলাকার ৭৫ নং বাসার ইস্তরি মিয়ার ছেলে জায়েদ (২৫), সুনামগঞ্জ জেলার জামালগঞ্জ থানার মশালঘাট গ্রামের আব্দুস শহিদের ছেলে ইমন আহমদ (৩৫), বর্তমানে সিলেট জেলার কোতোয়ালী থানার ঘাসিটুলা এলাকার ৪৯ নং তেরা মিয়ার বাসার বাসিন্দা। নেত্রকোনার কেন্দুয়া থানার তুরাছাপুর গ্রামের আব্দুল রাশিদের ছেলে মো. ফারুক মিয়া (৩৯), বর্তমানে সিলেট জেলার কোতোয়ালী থানার ঘাসিটুলা এলাকার জামাল মিয়ার কলোনি বাসিন্দা। কিশোরগঞ্জ জেলার ইটনা থানার বাদলা গ্রামের মো. আলাল উদ্দিন খানের ছেলে মো. সেলিম (৩২), বর্তমানে সিলেট জেলার কোতোয়ালী থানার ঘাসিটুলা এলাকার বাদশা মিয়ার কলোনি বাসিন্দা।

এসময় তাদের সাথে থাকা আরো ৫/৭ জন জুয়াড়ি পালিয়ে যায়। এসআই শাওন মাহমুদ অপু বাদী হয়ে আসামীদের বিরুদ্ধে কোতোয়ালী মডেল থানার মামলা নং- ২৯ তারিখ ১৫ অক্টোবর ২০১৯ মামলা দায়ের হয়।

অপরদিকে বুধবার (১৬ অক্টোবর) ২টার দিকে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের এসআই মো. আবুল কালাম আজাদ নেতৃতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে দক্ষিণ সুরমা পিরোজপুর এলাকায় ২০ (বিশ) পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট ও একটি সিএনজি অটোরিকশা, যাহার রেজি নং- সিলেট মেট্রো থ- ১১-৩৯৬৭ সহ মো. ছালেক আহমদ নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করা হয়।

আটক মাদক ব্যবসায়ী সিলেট জেলার দক্ষিণ সুরমা থানার খোজারখলা এলাকার ২০৮ নং বাবুল মিয়ার কলোনির বাসিন্দা মৃত দুদু মিয়ার ছেলে মো. ছালেক আহমদ (৩২)।

দক্ষিণ সুরমা থানার এসআই মো. আবুল কালাম আজাদ বলেন, মো. ছালেক আহমদ তার সিএনজি অটোরিকশাটি ব্যবহার করে সিলেট শহরের বিভিন্ন স্থানে কৌশলে ইয়াবা ট্যাবলেট ক্রয়-বিক্রয় করে আসছে। তার বিরুদ্ধে দক্ষিণ সুরমা থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। মামলা নং- ১৩ তারিখ- ১৬ অক্টোবর ২০১৯।

এ বিভাগের অন্যান্য