সর্বশেষ
এয়ারপোর্ট থানার সৈয়দ মূগনীতে শিবির ও এলাকাবাসীর সংঘর্ষ         ‘দর্শকশূন্য মাঠে খেলা হবে অদ্ভুত ব্যাপার’         ‘করোনা পাকিস্তানি ক্রিকেটারদের জন্য সমস্যা হবে না’         করোনায় আক্রান্ত কামরান         সিলেটের আরও ৪৭ জনের করোনা শনাক্ত         তিন হাসপাতালে ঘুরেও চিকিৎসা না পেয়ে মারা গেলেন ব্যবসায়ী         করোনা আক্রান্ত ডা. জাফরুল্লাহর শারীরিক অবস্থার অবনতি         করোনায় আরও এক চিকিৎসকের মৃত্যু         শাবিতে নমুনা পরীক্ষায় সুনামগঞ্জের আরও ২২ জনের করোনা শনাক্ত         দিন ফিরবেই দিনে         ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ২ হাজার ৮২৮ জন, মৃত্যু ৩০         করোনার উপসর্গ নিয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু, হাসপাতালে লাশ রেখে পালালেন স্বজনরা         ভারতে প্রতিদিনই করোনা আক্রান্তের সংখ্যায় তৈরি হচ্ছে নতুন রেকর্ড         যুক্তরাষ্ট্র ইতিহাসের সবচেয়ে খারাপ সময় পার করছে: রুহানি         যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রতিরক্ষামন্ত্রীকে ‘পাগলা কুকুর’ বললেন ট্রাম্প        

নবীগঞ্জে শিশুকে বর্বর নির্যাতন, সৎ বাবা গ্রেপ্তার

নিউজ ডেস্ক: হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে ৬ বছরের শিশু জিসান মিয়াকে নগ্ন করে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন করেছে তারই সৎ বাবা। এ ঘটনায় পুলিশ তার সৎ বাবাকে গ্রেপ্তার করেছে। বুধবার (৬ নভেম্বর) ভোরে নবীগঞ্জ থানার ওসি আজিজুর রহমানের নেতৃত্বে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে।

নির্যাতনের শিকার শিশুর মা সুমনা বেগম বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা করেছেন। গুরুতর আহত শিশুটিকে স্থানীয় লোকজনের সহযোগিতায় উদ্ধার করে মামার মাধ্যমে নানাবাড়িতে পাঠানো হয়েছে। স্থানীয়রা জানান, উপজেলার চরগাঁও গ্রামের সুফি মিয়ার সঙ্গে বিয়ে হয় সুমনা বেগমের। এর পর তাদের সংসারে জন্ম নেয় এক ছেলে ও এক মেয়ে। কিছুদিন পরই সুফি মিয়া মারা যান। তার মৃত্যুর পর সন্তানের কথা চিন্তা করে সফি মিয়ার ভাই স্বপন মিয়ার সঙ্গে বিয়েতে রাজি হন সুমনা বেগম। বিয়ের পর জীবিকার তাগিদে সুমনা গৃহকর্মীর কাজ নিয়ে পাড়ি জমান সৌদি আরবে। সেখানে গিয়ে শান্তিতে থাকতে পারেননি তিনি। টাকার জন্য তার একমাত্র সন্তানকে নির্যাতন করতে থাকে দ্বিতীয় স্বামী স্বপন মিয়া। আর সেই নির্যাতনের দৃশ্য ভিডিও করে তার কাছে পাঠানো হয়। তা দেখে হতভাগা মা সন্তানকে নির্যাতনকারীদের কাছ থেকে উদ্ধার করতে ধাপে ধাপে স্বপনের কাছে টাকা পাঠান। সেই টাকা উত্তোলন করে স্বপন।

 

বিষয়টি এলাকাবাসীর নজরে এলে স্থানীয় মুরব্বিদের সহযোগিতায় শিশু জিসান ও তার বোনকে মামার মাধ্যমে নানাবাড়ি পাঠানো হয়। শিশুটির স্বজনরা জানান, বাবা হারা ছোট্ট দুই শিশুকে দাদা-দাদি আর চাচার কাছে রেখে জীবিকার তাগিদে গৃহকর্মী হিসেবে সৌদি আরব গিয়েছিলেন সুমনা বেগম। আর যাওয়ার আগে সন্তানদের দেখাশোনার জন্য তাদের চাচাকে কিছু টাকাও দিয়ে গিয়েছিলেন তিনি। সৌদি আরব যাওয়ার দুই মাস যেতে না যেতেই তার সন্তানদের ওপর শুরু হয় নির্যাতন। টাকা দেয়ার জন্য ৬ বছর বয়সী আপন ভাতিজাকে নগ্ন করে নির্যাতন করে সেই ভিডিও তার মায়ের কাছে পাঠিয়েছিলেন চাচা ও সৎ বাবা স্বপন। নবীগঞ্জ থানার ওসি আজিজুর রহমান জানান, বিষয়টি পুলিশ সুপার তদারকি করছেন। নির্যাতনকারী স্বপন মিয়াকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় শিশুটির মা সুমনা বেগম বাদী হয়ে একটি মামলা করেছেন।






Related News

  • করোনার উপসর্গ নিয়ে বৃদ্ধের মৃত্যু, হাসপাতালে লাশ রেখে পালালেন স্বজনরা
  • করোনা আক্রান্ত সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাসিমের মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ, অবস্থার অবনতি
  • সুরমা খেলাঘরের শারদ পাইলট স্কুলে যুগ্মভাবে শীর্ষে।
  • করোনাকে জয় করলেন কাউন্সিলর আজাদ
  • সিলেটে শ্রমিকদের দু’পক্ষের সংঘর্ষ: অজ্ঞাত পনেরশ জনের বিরুদ্ধে মামলা
  • লিবিয়ায় ২৬ বাংলাদেশি হত্যার ‘প্রধান অভিযুক্ত’ নিহত
  • কেয়ারেন্টিনে সিসিক মেয়র ও সিইও, বাসা থেকেই করছেন অফিস
  • স্বাস্থ্যবিধির বালাই নেই, দ্বিগুণ ভাড়া আদায়ের অভিযোগ
  • Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *