সর্বশেষ
জমি নিয়ে বিরোধ, যুবককে প্রকাশ্যে পিটিয়ে হত্যা         বাস চলাচলে সরকারের ১২ শর্ত         ‘বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে আলোচনা করেই প্রধানমন্ত্রী ছুটি না বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন’         কাস্টমস-ভ্যাটের ডেপুটি কমিশনারসহ ২২ জন করোনায় আক্রান্ত         সাড়ে ৪ হাজারেরও বেশি পুলিশ করোনায় আক্রান্ত         লিবিয়ায় পাচারকারীদের গুলিতে নিহত ৫ জন ভৈরবের         এবার ‘প্লাজমা ব্যাংক’ প্রতিষ্ঠার সিদ্ধান্ত ডা. জাফরুল্লাহর         জৈন্তাপুরে গ্রামবাসী মিলে পিটিয়ে মেরে ফেললো ৯টি প্রাণী         সুনামগঞ্জে করোনা আক্রান্ত বাবার সংস্পর্শে এসে সংক্রমিত ২ সন্তান         অসুস্থ বাবাকে নিয়ে ১২০০ কিমি পাড়ি, জ্যোতিকে নিয়ে হচ্ছে সিনেমা         করোনায় মৃত্যুতে চীনকে ছাড়াল ভারত         নিজের দল থেকেই বহিষ্কার মাহাথির মোহাম্মদ         প্রসূতিকে হাসপাতাল থেকে বের করে দেয়ার অভিযোগ, মৃত সন্তান প্রসব         ২৪ ঘণ্টায় আড়াই হাজারের বেশি করোনা আক্রান্ত শনাক্ত         নিখোঁজের ৩ দিন পর পাহাড়ি ঢলে তলিয়ে যাওয়া যুবকের লাশ উদ্ধার        

এনা’র বাসে শিশু ধর্ষণের চেষ্টা, সুপারভাইজার গ্রেপ্তার

নিউজ ডেস্ক: হবিগঞ্জ থেকে ছেড়ে আসা ঢাকাগামী এনা পরিবহনে ৩য় শ্রেণীর এক ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে বাসের সুপার ভাইজার মানিক মোল্লা (৪৫) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

শনিবার (১২ অক্টোবর) বেলা সাড়ে ৩টার দিকে ঢাকাগামী এনা পরিবহনে বাসে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে উঠে সুপারভাইজারের উপর। গ্রেপ্তারকৃত মানিক মোল্লা নোয়াখালী জেলার সোনাইমুড়ি উপজেলার কাবিলপুর গ্রামের নাজির মিয়ার ছেলে। তিনি এনা পরিবহনের কর্তব্যরত সুপারভাইজার।

এই ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে মাধবপুর থানার ওসি কেএম আজমিরুজ্জামান, জানান হবিগঞ্জ জেলার বানিয়াচং উপজেলার কর্চা গ্রামের একটি পরিবার এনা পরিবহনে (ঢাকামেট্টো-ব-১৪-৭৮৫১) ঢাকা যাচ্ছিল। পরিবারের সদস্যরা এনা পরিবহনে উঠার পর শায়েস্তাগঞ্জ অলিপুর পাড় হবার পর সুপারভাইজার কৌশলে ওই শিশু ছাত্রীকে গাড়ীর পেছনের আসনে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এ সময় ওই ছাত্রী আর্তচিৎকারে তার পিতাসহ অন্যান্য যাত্রীরা এগিয়ে গিয়ে তাকে ধর্ষণ চেষ্টার কবল থেকে রক্ষা করেন।

এ সময় উত্তেজিত যাত্রীরা সুপারভাইজার মানিক মোল্লাকে মারধর করে। যাত্রীরা মাধবপুর থানা পুলিশকে খবর দিলে মাধবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ কেএম আজমিরুজ্জামান সঙ্গীয় পুলিশ নিয়ে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের মাধবপুর উপজেলার ইটাখোলা নামক স্থানে গাড়ী থামিয়ে অভিযুক্ত সুপারভাইজারকে গ্রেপ্তার করে ভিকটিমকে উদ্ধার করে।

ভিকটিমের পিতা জানান, তিনি ঢাকার টঙ্গীর পাঠান বাড়ি এলাকায় সপরিবারে একটি ফুলের বাগানে কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করে। তার মেয়ে স্থানীয় একটি ব্র্যাক স্কুলের ৩য় শ্রেণীর ছাত্রী। হবিগঞ্জ থেকে ঢাকা যাওয়ার পথে এ ঘটনা ঘটে।

তবে গাড়ির সুপার ভাইজার মানিক মোল্লা এ ঘটনায় নিজেকে নির্দেশ দাবি করে বলেন, তিনি মেয়ের পাশে সিটে বসেছিলেন। হঠাৎ গাড়ির স্পিড ব্রেকারে ঝাঁকুনি লাগলে ঘুম থেকে জেগে কেঁদে উঠে। তখন মেয়ের মা, মামা, বাবা তাকে মারপিট শুরু করে।

মাধবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ কেএম আজমিরুজ্জামান জানান, এ ঘটনায় ভিকটিমের পিতা সুপার ভাইজার মানিক মোল্লাকে আসামি করে মাধবপুর থানায় একটি মামলা করেছেন।






Related News

  • প্রসঙ্গ : প্যারোল এবং আমজনতার ভাবনা
  • দেশের সকল হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসা দেয়ার নির্দেশ
  • ঝড়ে গাছ ভেঙে ঘরের চালে, জয়পুরহাটে ঘুমন্ত ৪ জনের মৃত্যু
  • যেভাবে ঈদ কাটছে নাদেল-আজাদের
  • পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষে কামরান পরিবারের ব্যতিক্রমী আয়োজন
  • ঈদের রাতে সিলেটে ভূমিকম্প
  • কাউন্সিলর আজাদ করোনায় আক্রান্ত
  • একদিনে রেকর্ড ২৮ জনের মৃত্যু
  • Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *