বুধবার, ৩০ জানু ২০১৯ ০৮:০১ ঘণ্টা

ডাকসু নির্বাচন তরুণদের ভাবনা

ডাকসু নির্বাচন তরুণদের ভাবনা

ডাকসু নির্বাচনের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। সুদীর্ঘ ২৮ বছর পর এমন সিদ্ধান্তকে সাধুবাদ জানাচ্ছেন অনেকেই। বাংলাদেশে একমাত্র গণ বিশ্ববিদ্যালয়ে রয়েছে কেন্দ্রীয় ছাত্র-সংসদ। ডাকসু নির্বাচনকে ঘিরে শিক্ষার্থীদের প্রত্যক্ষ ভোটে নির্বাচিত তরুণ দুই নেতা গণ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের ভিপি-জিএস কি ভাবছেন, তাদের সঙ্গে কথা বলেছেন— মুন্নি আক্তার

জুয়েল রানা

ভিপি, গণ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ

তরুণদের ভাবনা

ছাত্র সমাজকে বিরাজনীতি থেকে রক্ষা করতে এবং ছাত্র-ছাত্রীদের অধিকার আদায়ে ছাত্র সংসদের ভূমিকা অপরিসীম। বর্তমানে বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে বিভিন্ন ধরনের সহিংসতা, প্রবল দলীয়করণ এবং অপরাজনীতিকে দূর করতে অবশ্যই ছাত্র সংসদের গুরুত্ব অপরিসীম। তবে এই সংসদকে অবশ্যই শিক্ষার্থীবান্ধব হতে হবে।

এই দেশের সরকার গঠনে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, মন্ত্রী, এমপি বা দেশ পরিচালনায় বরাবরই ভিপি-জিএস তথা ছাত্র সংসদের নির্বাচিত প্রতিনিধিদের লক্ষ্য করা যায়। দেশের পূর্বের গৌরবময় ইতিহাস বিবেচনা করে আগামীতে ডাকসু নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও সুস্পষ্ট হউক এবং ছাত্র-ছাত্রীদের প্রত্যক্ষ অংশগ্রহণের দাবি জানাই। যাতে করে সঠিক নেতৃত্বের সন্ধান পাওয়া যায়। আগামীতে দেশের সঠিক নেতাদের চিহ্নিত করতে এবং ছাত্র-ছাত্রীদের দলীয় করণের বাইরে এনে তাদের ন্যায্য অধিকার ফিরিয়ে দিতে ডাকসুসহ দেশের সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের পুনঃরায় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ চালু করার জোর দাবি জানাচ্ছি।

নজরুল ইসলাম রলিফ

জিএস, গণ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ

তরুণদের ভাবনা

ছাত্র সংসদ এমন একটি সংগঠন, যা শিক্ষার্থীদের ন্যায় সঙ্গত অধিকার প্রতিষ্ঠার কাজ করে থাকে। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের সাথে শিক্ষার্থীদের সেতুবন্ধন তৈরি করে এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের মধ্যে সু-সম্পর্ক স্থাপনে অগ্রণী ভূমিকা পালন করে। পূর্বের ইতিহাস বিবেচনা ও বিশ্লেষণ করে আমরা যতটুকু জেনেছি, সেই ইতিহাসের আলোকে সময়োপযোগী এবং শিক্ষার্থীবান্ধব তথা সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য একটি ছাত্র সংসদ হওয়া উচিত বলে ব্যক্তিগতভাবে আমি মনে করি।

ইতোমধ্যে ডাকসু নির্বাচন হতে যাচ্ছে শুনে আমি আনন্দিত। আশা ব্যক্ত করছি নিরপেক্ষ এবং সুশৃঙ্খলভাবে ডাকসু নির্বাচন অনুষ্ঠিত হলে অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদগুলো নির্বাচনে আগ্রহী হবে। রাজশাহী, চট্টগ্রাম, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদ নির্বাচনে আগ্রহ প্রকাশ করেছে।

সর্বশেষ সংবাদ

পাঠক

Flag Counter